””         গৃহবধুকে ধর্ষণের চেষ্টা ঘটনার ৩ বছর ১ মাস ৬ দিনের মধ্যেই দোষীকে সাজা ঘোষণা আদালতের – Arambagh Times
Mon. Oct 19th, 2020

Arambagh Times

কাউকে ছাড়ে না

গৃহবধুকে ধর্ষণের চেষ্টা ঘটনার ৩ বছর ১ মাস ৬ দিনের মধ্যেই দোষীকে সাজা ঘোষণা আদালতের

1 min read

দুলাল সিংহ; দক্ষিণ দিনাজপুরঃ গৃহবধুকে ধর্ষণের চেষ্টা ঘটনার ৩ বছর ১ মাস ৬ দিনের মধ্যেই দোষীকে সাজা ঘোষণা আদালতের। তপনের গৃহবধুকে ধর্ষণের চেষ্টার ঘটনায় দোষী ব্যক্তিকে ১০ বছরের সশ্রম কারাদন্ড এবং ১০০০০ টাকা জরিমানার নির্দেশ দিল আদালত। প্রসঙ্গত উল্লেখ যে বিগত ২০১৬ সালের ৪ঠা নভেম্বর দক্ষিণ দিনাজপুরের তপন ব্লকের মুরারিপুর এলাকার বছর পঁচিশের গৃহবধু শুভশ্রী মিত্র(নাম পরিবর্তিত)-কে ঘরে ঢুকে ধর্ষণ করার চেষ্টা করে তপনের বাজিতপুর এলাকার সাধন বর্মণ(৩৫) নামক এক ব্যক্তি। ঘটনার সময় গৃহবধু প্রতিরোধের মুখে পড়ে এবং গৃহবধু চিৎকার করলে পালিয়ে যায় ঐ ব্যক্তি। এরপর ঐ গৃহবধুর অভিযোগের ভিত্তিতে পরের দিনই পুলিশ অভিযুক্ত ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করে এবং বিগত বছর ১২ই ফেব্রুয়ারী পুলিশ ঐ অভিযুক্ত ব্যক্তির বিরুদ্ধে ৪৪৮, ৩৭৬ এবং ৫১১ ধারায় চার্জ গঠন করে। এরপর প্রায় দেড় বছরেরও অধিক সময় ধরে চলে মামলার শুনানি। চলতি বছরের ডিসেম্বর মাসে সেই মামলার শুনানি শেষ হয়। এবং সোমবার দক্ষিণ দিনাজপুর জেলা ও দায়রা আদালতে অভিযুক্ত সাধন বর্মণ দোষী সাব্যস্ত হন।

যার পরে মঙ্গলবার দক্ষিণ দিনাজপুর জেলা ও দায়রা আদালতের বিচারক দোষী সাধন বর্মণ-কে ৪৪৮ নং ধারায় ১ বছর সশ্রম কারদন্ড এবং ১ হাজার টাকার জরিমানা(অনাদায়ে আরও এক মাসের সশ্রম কারাদন্ড) এবং ৩৭৬ ও ৫১১ নং ধারায় দোষী প্রমাণিত হওয়ায় ১০ বছরের জন্য সশ্রম কারাদন্ড ও ১০ হাজার টাকা জরিমানার (অনাদায়ে আরও এক মাস সশ্রম কারদন্ড) রায় দেন বলে এদিন জানিয়েছেন দক্ষিণ দিনাজপুর জেলা আদালতের সরকারি আইনজীবী ঋতব্রত চক্রবর্তী ও সহকারী সরকারি আইনজীবী অভিজিৎ সাহা। হায়দ্রাবাদের পশু চিকিৎসককে ধর্ষণ করে খুনের ঘটনার পর দেশের বিভিন্ন প্রান্তের নারী ও শিশুদের উপর পাশবিক নির্যাতনের ঘটনার বিচার প্রক্রিয়ার বিলম্ব নিয়ে যখন সমাজে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে সেই সময় এই মামলায় ঘটনা ঘটবার ৩ বছর ১ মাস ৬ দিনের মধ্যেই দক্ষিণ দিনাজপুর জেলা আদালতের এই রায় ঘোষণা আইনের প্রতি সাধারণ মানুষের আস্থা বৃদ্ধি করবে বলে ধারণা অধিকাংশ মানুষের। দক্ষিণ দিনাজপুর জেলা আদালতের সরকারি আইনজীবী ঋতব্রত চক্রবর্তী বলেন সব মিলিয়ে একটা বার্তা নিশ্চয় যাওয়া উচিৎ যে এই ধরনের অপরাধ করলে খুব সহজে পাড় পাওয়া যাবে না, এর থেকে মানুষ নিশ্চয় শিক্ষা নিয়ে বিরত থাকবে এধরণের ঘৃণ্য অপরাধ থেকে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Copyright © All rights reserved. | Powered by KTSL TECHNOLOGY SERVICES PVT LTD(7908881231).